চট্টগ্রামের ১০টি আসনে প্রতীক পেলেন ৬৬ জন

সিটিজি ভয়েস ডেস্ক: 

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে চট্টগ্রাম জেলার ১০টি সংসদীয় আসনের ৬৬ জন প্রার্থী প্রতীক বরাদ্দ পেয়েছেন। সোমবার (১০ ডিসেম্বর) সকাল ১০টা থেকে জেলা প্রশাসক ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মোহাম্মদ ইলিয়াস হোসেন প্রার্থীদের মধ্যে প্রতীক দেওয়া শুরু করেন।

এর মধ্যে চট্টগ্রাম-১ (মিরসরাই) আসনে আওয়ামী লীগের ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন-নৌকা, বিএনপির নুরুল আমিন-ধানের শীষ, ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ এর মোহাম্মদ সামসুদ্দীন-হাত পাখা, বাংলাদেশ মুসলিম লীগের শেখ জুলফিকার বুলবুল চৌধুরী-হাত পাঞ্জা, গণফোরামের নুর উদ্দিন আহমদ-উদীয়মান সূর্য, ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশ এর মোহাম্মদ আবদুল মান্নান পেয়েছেন চেয়ার প্রতীক।

চট্টগ্রাম-২ (ফটিকছড়ি) আসনে বিএনপির মো. আজিম উল্লাহ বাহার-ধানের শীষ, বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশনের সৈয়দ নজিবুল বশর মাইজভাণ্ডারী-ফুলের মালা, ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ এর মোহাম্মদ আতীক-হাত পাখা, ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশ এর মীর মোহাম্মদ ফেরদৌস আলম-চেয়ার, জাতীয় পার্টির জহুরুল ইসলাম রেজা-লাঙ্গল ও আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী এটিএম পেয়ারুল ইসলাম পেয়েছেন আপেল প্রতীক ।

চট্টগ্রাম-৩ (সন্দ্বীপ) আসনে আওয়ামী লীগের মাহফুজুর রহমান মিতা-নৌকা, বিএনপির মোস্তফা কামাল পাশা-ধানের শীষ, ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ এর হাফেজ মাওলানা মনসুরুল হক-হাত পাখা, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির মোহাম্মদ মোকতার আজাদ খান-আম, কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সেলিম উদ্দিন হায়দার-গামছা প্রতীক পেয়েছেন।

চট্টগ্রাম-৬ (রাউজান) আসনে আওয়ামী লীগের এবিএম ফজলে করিম চৌধুরী-নৌকা, বিএনপির জসীম উদ্দিন সিকদার-ধানের শীষ, ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশের আবদুল আলী-হাত পাখা প্রতীক বরাদ্দ পেয়েছেন।

চট্টগ্রাম-৭ (রাঙ্গুনিয়া) আসনে প্রতীক বরাদ্দ পেয়েছেন ৬ জন প্রার্থী। এর মধ্যে আওয়ামী লীগের ড.হাসান মাহমুদ-নৌকা, লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টির (এলডিপি) নুরুল আলম-ছাতা, ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ এর মোহাম্মদ নিয়ামত উল্লাহ-হাত পাখা, বাংলাদেশ ইসলামিক ফ্রন্টের মুহাম্মদ আবু নওশাদ-মোমবাতি, জেএসডির মাহাবুবর রহমান-তারা, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির মুহাম্মদ জিয়াউর রহমান-আম প্রতীক পেয়েছেন।

চট্টগ্রাম-১২ (পটিয়া) আসনে আওয়ামী লীগের সামশুল হক চৌধুরী-নৌকা, বিএনপির মো. এনামুল হক-ধানের শীষ, জাতীয় পার্টির মোহাম্মদ নুরুচ্ছাফা সরকার-লাঙ্গল, ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশের মুহাম্মদ দেলওয়ার হোসেন সাকী-হাত পাখা, ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশের মোহাম্মদ মঈন উদ্দীন চৌধুরী-চেয়ার, বাংলাদেশ ইসলামিক ফ্রন্টের এমএ মতিন-মোমবাতি, বিএনএফ এর দীপক কুমার পালিত-টেলিভিশন, বাসদ এর সাইফুদ্দীন মোহাং ইউনুছ-মই প্রতীক পেয়েছেন।

চট্টগ্রাম-১৩ (আনোয়ারা) আসনে বাংলাদেশ ইসলামিক ফ্রন্টের এমএ মতিন-মোমবাতি, আওয়ামী লীগের সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ-নৌকা, ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ এর মোহাম্মদ ইরফানুল হক চৌধুরী-হাত পাখা, বিএনপির সরওয়ার জামাল নিজাম-ধানের শীষ, গণফোরামের উজ্জ্বল ভৌমিক-উদীয়মান সূর্য, বিএনএফ এর নারায়ণ রক্ষিত-টেলিভিশন, বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের মৌলভী রশিদুল হক-বটগাছ, ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশের মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম চৌধুরী পেয়েছেন চেয়ার প্রতীক।

চট্টগ্রাম-১৪ (চন্দনাইশ) আসনে এলডিপির ড. অলি আহমদ-ছাতা, আওয়ামী লীগের মো. নজরুল ইসলাম চৌধুরী-নৌকা, বাংলাদেশ ইসলামিক ফ্রন্টের সেহাব উদ্দিন মুহাম্মদ আবদুস সামাদ-মোমবাতি, ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ এর মুহাম্মদ দেলওয়ার হোসেন সাকী-হাত পাখা, ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশ এর মুহাম্মদ জানে আলম নিজামী-চেয়ার, বাংলাদেশ কমিউনিস্ট পার্টির আবদুল নবী-কাস্তে, বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশন এর মোহাম্মদ আলী ফারুকী-ফুলের মালা, বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টির আলী নেওয়াজ খান-কুঁড়েঘর, জাতীয় পার্টির আবু জাফর মোহাম্মদ ওয়ালী উল্লাহ পেয়েছেন লাঙ্গল প্রতীক ।

চট্টগ্রাম-১৫ (সাতকানিয়া-লোহাগাড়া) আসনে জামায়াত নেতা আ ন ম শামসুল ইসলাম-ধানের শীষ, আওয়ামী লীগের আবু রেজা মুহাম্মদ নেজামুদ্দিন নদভী-নৌকা, ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ এর নুরুল আলম-হাত পাখা, গণফোরামের আবদুল মোমেন চৌধুরী-উদীয়মান সূর্য, এনপিপির ফজলুল হক-আম প্রতীক পেয়েছেন।

চট্টগ্রাম-১৬ (বাঁশখালী) আসনে বিএনপির জাফরুল ইসলাম চৌধুরী-ধানের শীষ, আওয়ামী লীগের মোস্তাফিজুর রহমান-নৌকা, ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ এর এইচ এম ফরিদ আহমদ-হাত পাখা, ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশ এর মোহাম্মদ মহিউল আলম চৌধুরী-চেয়ার, ন্যাপের আশীষ কুমার শীল-কুঁড়েঘর, জাতীয় পার্টির মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরী-লাঙ্গল, বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্টের মুহাম্মদ মনিরুল ইসলাম-মোমবাতি, স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম-আপেল ও বজল আহমেদ-বেঞ্চ প্রতীক পেয়েছেন।

মতামত