নরসিংদীতে ১ দিনেই ৩ চিকিৎসকসহ করোনায় আক্রান্ত ২৭, মোট শনাক্ত ৯২ জন

বেলাবতে শ্বাসকষ্টে একজনের মৃত্যু…

মোঃ আল আমিন, নরসিংদী প্রতিনিধি:
(কোভিড-১৯) করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা নরসিংদীতে প্রতিদিনই পেছনের দিনগুলোকে অতিক্রম করছে। শুক্রবার ১৭ এপ্রিল বিগত ২৪ ঘন্টায় নরসিংদী জেলায় নতুন করে ৩ চিকিৎসকসহ আরো ২৭ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে। নতুন আক্রান্ত ২৭ জনসহ নরসিংদী জেলায় সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী আক্রান্তের সংখ্যা এখন ৯২ জনে দাড়িয়েছে।

এর মধ্যে সদর উপজেলার ১ জন ও পলাশের ১ জন সুস্থ হয়েছেন। নতুন আক্রান্তদের মধ্যে নরসিংদী সদর উপজেলার ১২ জন, শিবপুরের ৪ জন, বেলাব উপজেলার ৯ জন ও রায়পুরা উপজেলার ২ জন।

শুক্রবার (১৭ এপ্রিল) বিকালে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) ও জেলা করোনা প্রতিরোধ জরুরি সেলের প্রধান ইমরুল কায়েস ও নরসিংদী জেলা সিভিল সার্জন ডা. ইব্রাহীম টিটন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

জানা যায়, নরসিংদী জেলায় এ পর্যন্ত চিকিৎসক, ইঞ্জিনিয়ার, প্রকল্প কর্মকর্তা, সাংবাদিক, স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তা-কর্মচারী ও শিশুসহ ৯২ জন নোবেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার ৩৮ জনের নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকায় পাঠানো হলে তাদের মধ্য থেকে নতুন করে ২৭ জনের রিপোর্ট পজেটিভ আসে।

সর্বশেষ প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, নরসিংদী সদর উপজেলায় মোট ৪৮ জন, রায়পুরায় ১৩ জন, পলাশে ৩ জন, শিবপুরে ১২ জন, বেলাবতে ১১ জন ও মনোহরদীতে ৫ জন আক্রান্ত হয়েছে। এদের মধ্যে নরসিংদী সদর উপজেলার ১ জন ও পলাশ উপজেলার ১ জন সুস্থ হয়েছেন। নরসিংদী জেলায় এ পর্যন্ত ৩৬৩ জনের নমুনা সংগ্রহ করে আইইডিসিআর এ পাঠানো হয়। যার মধ্য থেকে এ পর্যন্ত ৯২ জনের রিপোর্ট পজেটিভ আসে।

আক্রান্তদের নরসিংদী ১০০ শয্যা বিশিষ্ট জেলা হাসপাতালে (করোনা হাসপাতাল) স্থাপিত আইসোলেশনে রাখার ব্যবস্থা করা হয়েছে। এছাড়া নতুন আক্রান্তদের পরিবারের সদস্য ও সংস্পর্শে আসা ব্যক্তিদের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হচ্ছে এবং তাদের বাধ্যতামূলক ভাবে কোয়ারেন্টিনে রাখার ব্যবস্থা গ্রহণ করা হচ্ছে।

এদিকে বৃহস্পতিবার রাতে বেলাবতে শ্বাসকষ্টে মো: নান্নু মিয়া (৫০) নামে এক জনের মৃত্যুতে করোনা সন্দেহে নমুনা সংগ্রহ করেছে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, নিহত নান্নু মিয়া কিছুটা শ্বাসকষ্ট ও বুক ব্যাথায় ভুগছিলেন। দুই তিন দিন আগে তিনি বেলাব উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে শ্বাসকষ্ট ও বুক ব্যাথার চিকিৎসা নেন। বৃহস্পতিবার রাতে তিনি নিজ ঘরে একাই ঘুমিয়ে পড়েন। সকালে তাকে মৃত অবস্থায় পাওয়া যায়।

বেলাব উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা মোঃ নজরুল ইসলাম জানান, নিহত নান্নু মিয়া মাদকাসক্ত ছিল। দুই তিন দিন আগে সে হাসপাতালে এসে চিকিৎসা নিয়েছে। মৃত্যুর পর মরদেহের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ৬ এপ্রিল সোমবার নরসিংদী জেলার পলাশে প্রথম করোনাভাইরাস আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। গত ৯ এপ্রিল নরসিংদী জেলাকে অবরুদ্ধ (লকডাউন) ঘোষণা করে নরসিংদী জেলা প্রশাসন। গত ১৩ এপ্রিল নরসিংদী ১০০ শয্যা বিশিষ্ট জেলা হাসপাতালকে করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসা কেন্দ্র ঘোষণা করে জেলা সিভিল সার্জন অফিস।

মতামত