ঈদের ছুটিতে যারা গ্রামের বাড়িতে ফিরতে একান্তই ইচ্ছুক, তারা নিজস্ব পরিবহনে বাড়ি ফিরতে পারবে

সিটিজি ভয়েস টিভি ডেস্ক:

করোনাভাইরাস মহামারির কারণে সরকারের পক্ষ থেকে ঘোষণা করা হয়েছিল এবার যে যেখানে আছেন, সেখানেই পবিত্র ঈদুল ফিতর পালন করবেন। এর কিছুদিন পর বলা হল, ঈদের আগের চার দিন এবং পরের দুই দিন রাস্তায় কোনো গাড়ি চলাচল করতে পারবে না। তারপরও অনেকেই গ্রামের বাড়ি ফিরছিলেন। তবে তাদেরকে পুলিশি নানা বাধার সম্মুখীন হতে হয়েছে। কেউ কেউ ফেরি চলাচল বন্ধ থাকায় মাঝপথ থেকে ফিরে আসতে বাধ্য হয়েছে। এবার তাদের জন্য একটি সুযোগ করে দিয়েছে সরকার।

সরকারের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে,  ঈদের ছুটিতে যারা গ্রামের বাড়িতে ফিরতে একান্তই ইচ্ছুক, তারা নিজস্ব পরিবহনে বাড়ি ফিরতে পারবেন। তাদের বাধা দেওয়া হবে না। বৃহস্পতিবার সরকারের উচ্চমহল থেকে পুলিশ বিভাগকে এ ধরনের একটি মৌখিক নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

নির্দেশনায় বলা হয়েছে, ছুটিতে জরুরি কাজের জন্য কেউ যদি গ্রামের বাড়ি ফিরতে চায়, তাহলে পুলিশ যেন তাদের অনুমতি দেয়। তাদের যেন খুব বেশি হয়রানি বা প্রশ্নোত্তরের শিকার না হতে হয়। তবে কোনক্রমেই গণপরিবহন চলবে না।

পুলিশের একজন দায়িত্বশীল কর্মকর্তা বলেন, ‘সরকারের উচ্চমহল থেকে মৌখিক এই নির্দেশনাটি প্রথমে পুলিশে বিভাগে আসে। নির্দেশনায় বলা হয়, যারা কষ্ট করে বাড়ি ফিরছেন তাদের যেন বাড়ি ফিরতে দেয়া হয়। তবে তারা গণপরিবহনে বাড়ি ফিরতে পারবেন না।’

নির্দেশনাটি পাওয়ার পর পুলিশের প্রতিটি রেঞ্জের ডিআইডি, পুলিশ সুপার (এসপি) এবং মেট্রোপলিটন শহরের উপ-কমিশনারদের (ডিসি) জানিয়ে দেয়া হয়েছে। সদরদফতরের এ ধরনের বার্তা পাওয়ার পর পুলিশ গাবতলী থেকে চেকপোস্ট তুলে নিয়েছে।

মতামত